পুরোনো খবরের কাগজের অসাধারণ কিছু ব্যবহার! জানলে চমকে যাবেন আপনি

প্রতিদিন সারাদেশের খবর রাখতে বেশিরভাগ মানুষের ঘরেই খবরের কাগজ রাখা হয়। আর সেগুলো জমিয়ে ঘর বোঝাই করে রাখেন অথবা বিক্রি করে দেন। কিন্তু পুরনো কাগজগুলো বিক্রি বা জমিয়ে না রেখে কাজে লাগান ভিন্ন কিছু প্রয়োজনে। যা আপনার দৈনন্দিন নানান কাজকে সহজ করে তুল্বে। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক খবরের কাগজের ভিন্ন ব্যবহার-

জানালা পরিষ্কার করতে
কাপড়ের সাহায্যে জানালার কাচের দাগ দূর করা বেশ কঠিন। সেক্ষেত্রে, পুরানো খবরের কাগজ দিয়ে জানালা পরিষ্কার করলে তা কাচের আর্দ্রতা শুষে নেয় এবং ভালো ভাবে পরিষ্কার করে। ভালো ফলাফল পেতে সাবান পানির পরিবর্তে ভিনেগার ও পানির দ্রবণ ব্যবহার করে কাচ পরিষ্কার করা যায়। একই ভাবে গাড়িও পরিষ্কার করা যেতে পারে।

জিনিসপত্র রাখার তাকে আচ্ছাদন হিসেবে
নিউজপ্রিন্ট আর্দ্রতা শুষে নেয় এবং সহজে পুরানোভাব আসতে দেয় না। তাই খবরের কাগজ দিয়ে জিনিসপত্র রাখার তাকে বিছিয়ে ব্যবহার করা যায়। তাছাড়া এটা সাশ্রয়ী, ব্যবহারের পর ফেলে দেয়া যায় এবং দেখতেও পরিচ্ছন্ন লাগে। তাই নিজের ইচ্ছা মতো ব্যবহার করে কয়েকদিন পর পরই তা বদলে নিতে পারেন।

গ্রিলার পরিষ্কার করতে
স্যান্ডউইচ, গ্রিল বা বারবিকিউ করার পর গ্রিলার পরিষ্কারটা বেশ কষ্টকর। কাজ শেষ হওয়ার পর সুইচ বন্ধ করে কিছুক্ষণ অপেক্ষা করুন। তারপর কয়েক ফোঁটা পানি ভেতরে ও বাইরে ছিটিয়ে দিয়ে পুরানো খবরের কাগজের সাহায্যে পরিষ্কার করে নিন।

বারবিকিউ’য়ের গ্রিল পরিষ্কার করার জন্য চার পরত কাগজ গ্রিলের ওপর দিয়ে এমনভাবে পানি স্প্রে করুন যেন কাগজ তা শুষে নেয়। এরপর বারবিকিউয়ের ঢাকনা বন্ধ করে ১৫ মিনিট অপেক্ষা করুন। ওই কাগজ দিয়েই ভিতরটা ভালোভাবে পরিষ্কার করে নিন। সব শেষে শুকনা কাপড় দিয়ে সব মুছে নিন।

জিনিসপত্র প্যাক করতে
কোনো কিছু সংরক্ষণ করতে খবরের কাগজ ব্যবহার করা যায়। ভেঙে যাওয়ার আশংকা আছে এমন কোনো কিছু প্যাকেট করতে তিন পরতে কাগজ পেঁচিয়ে নিন। আবার কিছু কাগজ এর ভিতরেও গুঁজে দিতে পারেন যেমন- কাপ। আর কিছু কাগজ কুঁচকে জিনিসের চারপাশে গুজে দিন। এতে জিনিস ভালো থাকে এবং ভাঙার সম্ভাবনাও থাকবে না।

পোষা প্রাণীদের টয়লেট বক্সের নিচে
যারা পশুপাখি পুষতে পছন্দ করেন, তারা এই কাগজ পোষা প্রাণীদের টয়লেট বক্সের নিচে ব্যবহার করতে পারেন। এতে ঘর নোংরা হবে না। আর না পরিষ্কারের জামেলা থাকবে। শুধু কাগজ বদলে দিলেই হবে।